শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১২:১১ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ :
ঝিনাইদহে ২৭ মণ ওজনের দুদরাজের দাম হাকা হচ্ছে ১০ লাখ টাকা ঝিনাইদহের সংসদ আনার হত্যার চাঞ্চল্যকর তথ্য, ছবি ও ভিডিও প্রকাশ ঝিনাইদহে ট্রাক চাপায় এক যুবকের মৃত্যু ঝিনাইদহে টেবিল টেনিস প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত খুলনা রেঞ্জের শ্রেষ্ঠত্বের পুরস্কার পেলেন বেনাপোল পোর্ট থানার তিন অফিসার দির্ঘ ৯ বছরেও পূর্ণতা পায়নি ঝিনাইদহ সরকারি বাক ও শ্রবণ প্রতিবন্ধি স্কুলটি ঝিকরগাছায় ধর্ষিতা কিশোরীর ইজ্জতের দাম নির্ধারণ হলো ৩০ হাজার টাকা! দেশের দক্ষিনাঞ্চলে রেণু পোনা উৎপাদনে এক সমৃদ্ধ ভান্ডার ঝিনাইদহের বলুহর কেন্দ্রীয় মৎস্য হ্যাচারি ঝিনাইদহে প্রতিবন্ধী শিশুদের শিক্ষায় অর্ন্তভুক্তি বৃদ্ধির লক্ষ্যে অ্যাডভোকেসি সভা ঝিনাইদহের মহেশপুরে এক ব্যক্তিকে গলা কেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা

বেনাপোলে অনির্দিষ্ট কালের জন্য আমদানি-রপ্তানি বন্ধ

Reporter Name
  • Update Time : সোমবার, ৩১ জানুয়ারী, ২০২২
  • ৩১৭ Time View

কয়েক দিন ধরে দ্বন্দ্বের পর গত শনিবার বন্দর অচল হওয়ার উপক্রম হয়। তবু কয়েক ঘণ্টা চলার পর আবার চালু হলেও সোমবার সকাল থেকে অনির্দিষ্ট কালের জন্য বন্ধ রয়েছে বলে জানিয়েছেন বেনাপোল শুল্ক ভবনের কাস্টমস কার্গো শাখার পরিদর্শক গোলাম মোস্তফা।

 

ভারতের বনগাঁ গুডস ট্রান্সপোর্ট অ্যাসোসিয়েশনের যুগ্ম সম্পাদক বুদ্ধদেব বিশ্বাস বলেন, তারা তাদের সংগঠনের পরিচয়পত্র নিয়ে বন্দরে কাজকর্ম করে আসছিলেন।

“গত ১৫ জানুয়ারি বিএসএফ থেকে বলা হয়, ভারতীয় কাস্টমস, পেট্রাপোল বন্দর কর্তৃপক্ষ, সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট স্টাফ ও ট্রান্সপোর্ট অ্যাসোসিয়েশনের যৌথ স্বাক্ষরে তৈরি পরিচয়পত্র ব্যবহার করতে হবে। অন্যথায় কাউকে পেট্রাপোল বন্দর এলাকায় ঢুকতে দেওয়া হবে না।”

এই দ্বন্দ্বে শনিবার আমদানি-রপ্তানি আট ঘণ্টা বন্ধ থাকে বলে তিনি  জানিয়েছেন, পরে এক বৈঠকে আলোচনার পর আবারও বাণিজ্য চালু হয়।“তারা আমাদের সোমবার পর্যন্ত সময় দেয়। কিন্তু দুই দিনের মধ্যে চারটি সংস্থার যৌথ স্বাক্ষরে পরিচয়পত্র তৈরি করা কঠিন। এ কারণে বাধ্য হয়ে আমরা বন্দর এলাকায় যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছি। আমাদের কোনো উপায় নেই।”এ কারণে ভারত থেকে বাংলাদেশে পণ্য রপ্তানি হচ্ছে না। একই কারণে বাংলাদেশ থেকেও ভারতে রপ্তানি হচ্ছে না।

মিলন কবির/এসএনবিএন

Please Share This Post in Your Social Media

More News Of This Category
© All rights reserved © 2023 SN BanglaNews
কারিগরি সহযোগিতায়: