সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪, ০২:৪১ পূর্বাহ্ন
সর্বশেষ :
প্রধানমন্ত্রী যার যার কৃষ্টি ও সংস্কৃতি পালন করার স্বাধীনতা দিয়ে অসাম্প্রদায়িক বাংলাদেশ নিশ্চিত করেছেন-পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী রাজধানীতে পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে পাহাড়ি প্রাণের উৎসব বৈসাবি পালিত ঝিনাইদহে শেষ মুহুর্তে জমে উঠেছে ঈদের বাজার ঝিনাইদহে ঈদ উপলক্ষে অস্বচ্ছল পরিবারের মাঝে ঈদ সামগ্রী বিতরণ ঝিকরগাছায় সেবা’র চার শতাধিক ব্যক্তির মাঝে ঈদ উপহার সামগ্রী বিতরণ গরীব অসহায় ও দুস্থদের মাঝে কোটচাঁদপুর ব্লাড ব্যাংকের উদ্দ্যোগে ঈদ সামগ্রী বিতরণ ঝিকরগাছা ফেমাস ক্লিনিক কাগজে কলমে বন্ধ, ভেতরে চলছে অপারেশন সহ সবকিছু বেনাপোলের কিশোরীর মরদেহ যশোরে উদ্ধার ঝিনাইদহে বিশ্ব অটিজম সচেতনতা দিবস পালিত এতিমদের সাথে “শার্শা উপজেলা সাংবাদিক ঐক্য পরিষদ” এর ইফতার আয়োজন

ঝিনাইদহের বিভিন্ন উপজেলার বিস্তৃত মাঠ জুড়ে বিছানো রয়েছে যেন হলুদ গালিচা

Reporter Name
  • Update Time : বৃহস্পতিবার, ২২ ডিসেম্বর, ২০২২
  • ১৯৫ Time View
ঝিনাইদহের বিভিন্ন উপজেলার বিস্তৃত মাঠ জুড়ে বিছানো রয়েছে যেন হলুদ গালিচা
ঝিনাইদহের বিভিন্ন উপজেলার বিস্তৃত মাঠ জুড়ে বিছানো রয়েছে যেন হলুদ গালিচা

বসির আহাম্মেদ,ঝিনাইদহ প্রতিনিধি- ঝিনাইদহের বিভিন্ন উপজেলার বিস্তৃত মাঠ জুড়ে বিছানো রয়েছে যেন হলুদ গালিচা। সদর উপজেলার মিয়াকুন্ডু গ্রামের দিগন্ত বিস্তৃত মাঠ সরিষার ফুলে ফুলে ভরে গেছে । যতদূর চোখ যায় শুধু হলুদ আর হলুদ। মাঠ জুড়ে বিছানো রয়েছে যেন হলুদ গালিচা। রঙের পাশাপাশি সরিষার হলুদ ফুলের গন্ধ মাতিয়ে দিয়েছে পুরো এলাকা। রঙ আর সুবাসে প্রকৃতি সেজেছে অপরূপ সৌন্দর্যের নান্দনিক রূপে। মিয়াকুন্ডু গ্রামের মতই ঝিনাইদহের ৬ টি উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের মাঠে এবার কৃষি বিভাগের লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে বেশি জমিতে সরিষার আবাদ হয়েছে। সরিষা ফুলে ফুলে ভরে গেছে বিভিন্ন উপজেলার মাঠ। ফসলের মাঠ ছেয়ে গেছে সরিষার হলুদ ফুলে। সেই সাথে মৌমাছির গুঞ্জনে মুখরিত হয়ে উঠেছে পুরো এলাকা।
কৃষি বিভাগের দেওয়া তথ্য মতে এ বছর ঝিনাইদহের ৬ টি উপজেলায় ৯ হাজার ৭’শ ৭০ হেক্টর জমিতে সরিষা চাষের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে। এখন পর্যন্ত আবাদ বৃদ্ধি হয়ে ১১ হাজার ১’শ ২ হেক্টর জমিতে সরিষা চাষ হয়েছে। আবহাওয়া অনুকুলে থাকা আর কৃষি বিভাগের প্রণোদনা দেওয়ায় এবার আবাদ বেশি হয়েছে।  সেই সাথে পরিমিত পরিচর্যার কারণে ফলনও ভালো আশা করছেন তারা।

ঝিনাইদহের বিভিন্ন উপজেলার বিস্তৃত মাঠ জুড়ে বিছানো রয়েছে যেন হলুদ গালিচা

ঝিনাইদহের বিভিন্ন উপজেলার বিস্তৃত মাঠ জুড়ে বিছানো রয়েছে যেন হলুদ গালিচা

সদর উপজেলার মিয়াকুন্ডু গ্রামের কৃষক তুহিন মিয়া বলেন, এবার ঝড় বৃষ্টি হয়নি। যে কারণে সরিষার কোন ক্ষতি হয়নি। আবহাওয়া ভালো থাকায় এবার ফলণ ভালো হবে বলে আমরা আশা করছি।
একই গ্রামের কৃষক আমির হোসেন বলেন, গত বছর বৃষ্টির কারণে সরিষা নষ্ট হয়ে গিয়েছিলো। কিন্তু এবার এখন পর্যন্ত কোন সমস্যা হয়নি। আগামীতে কোন প্রাকৃতি দুর্যোগ না হলে ৪৬ শতকের বিঘায় আমরা ১০ থেকে ১১ মন ফলন পাব বলে আশা করছি।

কৃষক আল-আমিন বলেন, এবার সরকারের পক্ষ থেকে আমাদের সরিষার বীজ ও সার দেওয়া হয়েছে। যেই কারণে এবার সরিষার ব্যাপক আবাদ হয়েছে। তেলের যে দাম কিনে খাওয়ার মত নেই। এবার সরিষার ফলন হলে সয়াবিন তেলের উপর আমরা আর নির্ভর করব না। আমরা এবার নিজেদের জমির উৎপাদিত সরিষার তেল দিয়েই সারাবছর চলব। সরিষা আবাদে আমাদের কৃষি বিভাগের পক্ষ থেকে সকল প্রকার সহযোগিতা করা হচ্ছে। কোন সমস্যা হলে উপ-সহকারী কৃষি কর্মকর্তাদের পরামর্শ নিচ্ছি।
এ ব্যাপারে ঝিনাইদহ সদর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা জাহিদুল করিম বলেন, সরকারের প্রণোদনা কর্মসূচীর আওতায় এ বছর কৃষকদের পর্যাপ্ত সার ও বীজ দেওয়া হয়েছে। ফলন ভালো পেতে আমরা নিয়মিত কৃষক ভাইদের পরামর্শ দিচ্ছি। সেই সাথে সরিষা ক্ষেতের পাশে মধু চাষ করাচ্ছি। এতে যেমন সরিষার ফলন বাড়ছে তেমন মধু উৎপাদন হচ্ছে। আমরা এবছর লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে বেশি সরিষা পাব বলে আশা করছি।

Please Share This Post in Your Social Media

More News Of This Category
© All rights reserved © 2023 SN BanglaNews
কারিগরি সহযোগিতায়: